Recent Comments

    ব্রেকিং নিউজ

    বিমানবন্দর সড়কের বাতি জ্বলেনি:নেতাকর্মীরা মোবাইল ফোনের আলো জ্বালিয়ে খালেদা জিয়াকে স্বাগত জানান || রোহিঙ্গা সঙ্কটের দীর্ঘমেয়াদি সমাধানে কিছুটা সময় লাগবে:ইইউ ডেলিগেশন প্রধান রাষ্ট্রদূত রেনসিয়া তিরিঙ্ক || সিইসি’র ব্যাখ্যায় আওয়ামী লীগ সন্তুষ্ট:নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে সংলাপ শেষে ওবায়দুল কাদের || নেতাকর্মীদের বিপুল সংবর্ধনায় সিক্ত হয়ে বাসায় ফিরেছেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া || আকস্মিকভাবে শিরোনামে প্রধান নির্বাচন কমিশনার কেএম নূরুল হুদা || ‘চিকিৎসার পর সুস্থ হয়ে ‘প্রধান বিচারপতি ফিরে এসেই কাজে যোগ দিতে পারবেন’:দিল্লিতে নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার সৈয়দ মোয়াজ্জেম আলী || শেখ হাসিনাকে নির্বাচনকালীন সরকারের প্রধানের প্রস্তাবনা নিয়ে নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে আজ সংলাপে বসছে আওয়ামী লীগ || দুই মাসের বেশি সময় লন্ডন অবস্থানের পর আজ দেশে ফিরছেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া || খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা থাকলেই তাকে গ্রেপ্তার করা হবে এটা ঠিক নয়: আইজিপি একেএম শহীদুল হক || ডাকসুর বর্তমান অবস্থা সম্পর্কে খোঁজ নিয়েছেন প্রেসিডেন্ট মো. আবদুল হামিদ ||

    বগুড়ায় ধর্ষিতা কিশোরীকে সেফহোমে এবং মাকে ভিকটিম সার্পোট সেন্টারে রাখার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত

    August 7, 2017

    pnbd24:-বগুড়ায় ধর্ষিতা কিশোরীকে সেফহোমে এবং তার মাকে ভিকটিম সার্পোট সেন্টারে রাখার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। সোমবার বিকালে জেলার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক ইমদাদুল হক এ নির্দেশ দেন। এর আগে শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে আদালতে হাজির করে তাদের নিরাপত্তার ব্যাপারে সিদ্ধান্ত চায় পুলিশ। পরে শুনানী শেষে আদালত মেয়েকে রাজশাহী বিভাগীয় সরকারি সেফহোমে এবং তার মাকে ভিকটিম সার্পোট সেন্টারে পাঠানোর আদেশ দেয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জেলা সহকারি পুলিশ সুপার সনাতন চক্রবর্তী। এদিকে মা ও মেয়ে টানা ১০দিন হাসপাতালে থাকার পর চিকিৎসকরা তাদের ছাড়পত্র দেয়। আজ দুপুর ১টায় পুলিশের হেফাজতে তারা হাসপাতাল ছাড়ে। এ বিষয়ে শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের উপপরিচালক নির্মলেন্দু চৌধুরী বলেন, ধর্ষক ও নির্যাতনের শিকার ওই কিশোরী এবং তার মা এখন সুস্থ হয়ে উঠেছে।
    উল্লেখ্য, ১৭ই জুলাই বিকালে কলেজে ভর্তি করানোর কথা বলে ওই কিশোরীকে বাড়ি ডেকে এনে কয়েক দফা ধর্ষণ করে বগুড়া শহর শ্রমিক লীগের নেতা তুফান সরকার। পরে মীমাংসার নামে তুফানের স্ত্রী আশা সরকার ও বড় বোন নারী কাউন্সিলর রুমকি ধর্ষিতা কিশোরী ও তার মাকে ডেকে বেধড়ক পিটিয়ে মাথা ন্যাড়া করে দেয়। গত ২৮শে জুলাই ধর্ষিতার মা বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেন। আসামিরা সবাই কারাগারে আছে।

    Print Friendly, PDF & Email